Sunday , July 22 2018
সর্বশেষ
Home / ক্যাম্পাস / অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়নের দাবিতে বশেমুরকৃবিতে ভেট শিক্ষার্থীদের মানব-বন্ধন কর্মসূচী পালিত

অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়নের দাবিতে বশেমুরকৃবিতে ভেট শিক্ষার্থীদের মানব-বন্ধন কর্মসূচী পালিত

আবু নাছের, বশেমুরকৃবিঃ প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন ত্বরান্বিত করার দাবিতে আজ দুপুর ১২ টায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেটেরিনারি মেডিসিন অ্যান্ড অ্যানিম্যাল সায়েন্স অনুষদের শিক্ষার্থীরা বাংলাদেশ ভেটেরিনারি স্টুডেন্ট ফেডারেশন-এর ব্যানারে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের সামনে এক মানব-বন্ধন কর্মসূচীর আয়োজন করে। অনুষদের চতুর্থ ব্যাচের ছাত্র মোঃ আমিনুল ইসলামের সঞ্চালনায় মানব-বন্ধনে বিভিন্ন ব্যাচের শত শত শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন।

  

মানব-বন্ধনের শুরুতেই আমিনুল ইসলাম ধন্যবাদ জানান বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও অনুষদের শিক্ষকবৃন্দকে কর্মসূচী পালনের অনুমতি দেবার জন্য।

মানব-বন্ধনে উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন প্রথম ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ সায়েদুল ইসলাম শান্ত। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, ‘টেকনিক্যাল সেক্টরের অন্যান্য অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়িত হলেও প্রানিসম্পদ অধিদপ্তরের তা বাস্তবায়ন হচ্ছে না। আমাদের আমিষের চাহিদা মেটাতে এই সেক্টরের অবদান অসামান্য। কিন্তু উপজেলা পর্যায়ে প্রাণীর তুলনায় ডাক্তারের সংখ্যা নগণ্য। অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন না হওয়া পর্যন্ত আমরা মানব-বন্ধন সহ বিভিন্ন কর্মসূচী পালন করে যেতে চাই।’

এরপর বক্তব্য রাখেন প্রথম ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ জাহাঙ্গীর আলম। তিনি বলেন, ‘অর্গানোগ্রাম নিয়ে অনেক কালক্ষেপণ হয়েছে, আর নয়। আমরা দ্রুত এর বাস্তবায়ন চাই।’

দ্বিতীয় ব্যাচের শিক্ষার্থী আব্দুর রহমান রনি তার বক্তব্য বলেন, ‘ভেটেরিনারি পেশা বলতে শুধু প্রাণি সেবাকেই বুঝায় না, এটি ওতপ্রোতভাবে মানবসেবার সাথেও জড়িত। আমরা আমিষের চাহিদা পূরণে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছি। কিন্তু এই সেক্টরে জনবলের অভাবের কারনে আমরা দুধ, ডিম, মাংস উৎপাদনে স্বয়ংসম্পূর্ণ হতে পারছি না। তাই জনবল বৃদ্ধির জন্য দ্রুত অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন প্রয়োজন।’

তৃতীয় ব্যাচের শিক্ষার্থী আবু নাছের তার বক্তব্যের শুরুতেই প্রানিসম্পদ অধিদপ্তরের উপজেলা পর্যায়ের অর্গানোগ্রামের চিত্র তুলে ধরেন। তিনি বলেন, ‘একজন ভেটেরিনারি সার্জন এবং একজন উপজেলা প্রানিসম্পদ কর্মকর্তার পক্ষে পুরো উপজেলায় প্রাণি সেবা দেওয়া সম্ভব নয়। মাঠ পর্যায়ে প্রাণী চিকিৎসকের চাহিদা এত বেশি যে এখন প্রতি ইউনিয়নে একজন করে প্রানী চিকিৎসক প্রয়োজন। অনেকদিন ধরে অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়নের কথা শুনলেও এখন আমরা এর দ্রুত বাস্তবায়ন চাই।’

চতুর্থ ব্যাচ থেকে বক্তব্য রাখেন আভা ও সেলিম। আভা তার বক্তব্যে বলেন, ‘প্রানিসম্পদ অধিদপ্তরের অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন না হওয়াটা দুঃখজনক। এটি বাস্তবায়ন না হওয়ার কারণে আমরা ডিভিএম পাশ করার পরেও সরকারী চাকরীতে প্রবেশের পর্যাপ্ত সুযোগ পাচ্ছি না। তাই আমদের সকলের দাবি দ্রুত অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়ন হোক।’

সেলিম তার বক্তব্যে বলেন, ‘আজ আমরা আমদের প্রাণের দাবি অর্গানোগ্রাম বাস্তবায়নের জন্য মানব-বন্ধনে হাজির হয়েছি। দ্রুত বাস্তবায়ন না হলে আরও কঠোর কর্মসূচী পালন করা হবে। প্রয়োজনে প্রত্যেক উপজেলা ভেটেরিনারি হাসপাতালে কর্মবিরতি সহ যদি আমাদের ক্লাস পরীক্ষা বর্জন করতে হয়, তাহলে আমরা সেটা করতেও রাজি আছি।’

বক্তব্য শেষে আমিনুল ইসলাম সবাইকে ধন্যবাদ দিয়ে মানব-বন্ধনের সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

About Abu Naser

Check Also

অবহেলিত হাওর অঞ্চলের উন্নয়নে কাজ করবে হাওর ও চর উন্নয়ন ইনস্টিটিউট-রাষ্ট্রপতি

বাকৃবি প্রতিনিধি উচ্চতর কৃষি শিক্ষা ও গবেষণায় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি) বরাবরই বিশেষ যত্নবান। এছাড়াও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *