Wednesday , April 25 2018
সর্বশেষ
Home / ক্যাম্পাস / বাকৃবিতে মৎস্যবিদদের মিলনমেলা

বাকৃবিতে মৎস্যবিদদের মিলনমেলা

বাকৃবি প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বাকৃবি) ১৯৬৭ সালে প্রতিষ্ঠিত মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদ গৌরবের ৫০বছর অতিক্রম করেছে। মৎস্য শিক্ষার সুতিকাগার এটি। ৫০বছর উদযাপন উপলক্ষে শুক্রবার থেকে তিনদিনব্যাপী চলছে সুবর্ণ জয়ন্তী উৎসব। এতে দেশ বিদেশে কর্মরত ১হাজার ৮০০ জন গ্রাজুয়েট অংশগ্রহণ করছে। আলোকচিত্র, দৃষ্টিনন্দন আলপনা, ব্যানার, ফেস্টুন, আলোকসজ্জা ও অ্যালামনাইদের পদচারণায় মুখরিত হয়েছে ক্যাম্পাস। বৃহস্পতিবার অনুষদের পক্ষ থেকে বিভিন্নি সামগ্রী বিতরন করা হয়। পরে সন্ধ্যায় আর্টসেল ব্যান্ডের গানের আসর বসে।

সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষে শনিবার সকাল ১০ টার দিকে মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের সামনে থেকে একটি বর্ণাঢ্য মৎস্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান প্রধান সড়ক অতিক্রম করে মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের সামনে এসে শেষ হয়। র‌্যালি শেষে মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের মাঠে তৈরি প্যান্ডেলে সুবর্ণ জয়ন্তীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. গিয়াস উদ্দিন আহমদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ধর্মমন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমান। প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর ও সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাকৃবির সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আনোয়ারুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপÑউপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. জসিমউদ্দিন খান, মৎস্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সৈয়দ আরিফ আজাদ, দেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের নির্বাহী সভাপতি ড. মো. কবীর ইকরামুল হক, বাংলাদেশ মৎস্য গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. ইয়াহিয়া মাহমুদ, বাংলা। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য দেন মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের ফিশারিজ বায়োলজি এন্ড জেনেটিক্স বিভাগের অধ্যাপক ড. মোস্তফা আলী রেজা হোসেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে মাৎস্যবিজ্ঞান অনুষদের ৫০ বছরের গবেষণা, সাফল্য এবং অর্জন তুলে ধরে একটি প্রামাণ্য চিত্র উপস্থাপন করা হয়। বক্তব্যে বক্তারা বলেন, মুক্ত জলাশয় ও চাষভিত্তিক মৎস্য উৎপাদনে বাংলাদেশ আজ পঞ্চম। এসময় মৎস্য সেক্টরের বিভিন্ন সাফল্য ও সম্ভাবনা তুলে ধরেন তারা।

বিকাল ৪টা থেকে অনুষদীয় মাঠে স্তৃতিচারণ ও সন্ধ্যায় সাংস্কৃতিক সন্ধ্যার আয়োজন করা হয়েছে।

 

মো. শাহীন সরদার
বাকৃবি প্রতিনিধি, ময়মনসিংহ।
০১৭৩ ৭৭২১৬০৩।

About Editor

Check Also

পাহাড়ের কাজু বাদাম এখন জমিতে!

এগ্রিভিউ২৪ ডেস্কঃ বাংলাদেশে প্রথম কাজু বাদাম হত পাহাড়ী এলাকায়। অন্য কোথাও তেমন দেখা যেতনা। তাই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *