Sunday , December 16 2018
সর্বশেষ
Home / পাঁচমিশালি / ঢাকা দক্ষিনের পর আগামীকাল ঢাকা উত্তরে অনুষ্ঠিত হবে বায়োলজি অলিম্পিয়াড

ঢাকা দক্ষিনের পর আগামীকাল ঢাকা উত্তরে অনুষ্ঠিত হবে বায়োলজি অলিম্পিয়াড

“প্রাণের টানে পারস্যে” শ্লোগান নিয়ে জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি জাদুঘর জীববিজ্ঞান উৎসব ২০১৮ এর আঞ্চলিক পর্যায়ের ঢাকা দক্ষিণ পর্ব গত ২৭ জানুয়ারি বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বুয়েট) অনুষ্ঠিত হয়েছে। আগামীকাল ২ জানুয়ারি শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত হবে ঢাকা উত্তরের আঞ্চলিক প্রতিযোগিতা।

এবার বাংলাদেশ জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড কমিটি সারা দেশে ১০ টি আঞ্চলিক ও একটি জাতীয় উৎসবের আয়োজন করছে। অলিম্পিয়াডের “ঢাকা দক্ষিন পর্ব”-তে প্রায় ৬০০ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। সকাল থেকেই বুয়েটের ইসিই বিল্ডিং প্রাঙ্গন শিক্ষার্থীদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে ওঠে। এ বছর তিনটি ক্যাটাগরিতে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। জুনিয়র ক্যাটাগরিতে ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণী, সেকেন্ডারি ক্যাটাগরিতে নবম ও দশম শ্রেণী এবং হায়ার সেকেন্ডারি ক্যাটাগরি তে একাদশ ও দ্বাদশ শ্রেণীর শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করে। সকাল ৯ টায় পরীক্ষা শুরু হয়। ১ ঘণ্টাব্যাপী এ পরীক্ষা সকাল ১০ টায় শেষ হয়। পরীক্ষা শেষ হবার পর অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থী ও স্বেচ্ছাসেবকদের সমন্বয়ে একটি র‍্যালি ইসিই বিল্ডিং এর প্রাঙ্গন থেকে শুরু হয়ে বুয়েটের মূল ক্যাম্পাসে গিয়ে শেষ হয়। সেখানে অডিটরিয়ামের সামনে প্রধান অতিথি বুয়েটের উপাচার্য প্রফেসর ড. সাইফুল ইসলাম জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও বেলুন ওড়ানোর মাধ্যমে অনুষ্ঠানের উদ্বোধন ঘোষণা করেন। এরপরে বুয়েটের অডিটরিয়ামে শুরু হয় সমাপনী পর্ব ও পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান।

বায়োমেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ তারিক আরাফাত ও বাংলাদেশ জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড কমিটির সভাপতি প্রফেসর ড. শহিদুর রশিদ ভূঁইয়ার শুভেচ্ছা বক্তব্যের মাধ্যমে সমাপনী অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। এরপর একে একে বিশেষ অতিথিদের মধ্যে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজের এনাটমি বিভাগের সাবেক বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. শামীম আরা, বুয়েটের ছাত্র কল্যাণ পরিদপ্তরের পরিচালক প্রফেসর ড. সত্য প্রসাদ মজুমদার বক্তৃতা দেন। এরপরে বুয়েটের উপাচার্য প্রফেসর ড. সাইফুল ইসলাম এবং জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি জাদুঘরের মহাপরিচালক স্বপন কুমার রায় বক্তব্য দেন।

এরপর বাংলাদেশ জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড কমিটির ঢাকা দক্ষিণ এর সভাপতি ও উক্ত অনুষ্ঠানের সভাপতি প্রফেসর ড. মিহির লাল সাহা সমাপনী বক্তব্য দেন। বক্তব্য পর্বের পর শুরু হয় প্রশ্নোত্তর পর্ব। সম্মানিত অতিথিবৃন্দ ধৈর্যের সাথে কৌতূহলী শিক্ষার্থীদের প্রতিটি প্রশ্নের উত্তর দেন। প্রশ্নোত্তর পর্বের পরে মূল আকর্ষণ- পুরষ্কার বিতরণী পর্ব শুরু হয়। জুনিয়র, সেকেন্ডারি ও হায়ার সেকেন্ডারি- সব ক্যাটাগরি মিলিয়ে মোট ২২৬ জনকে পুরষ্কারে ভূষিত করা হয়। জুনিয়র বিভাগে ৫ জন চ্যাম্পিয়ন হয়, এদের মধ্যে সর্বাধিক নাম্বার পেয়ে প্রথম হয় ওয়াইডব্লিউসিএ হায়ার সেকেন্ডারি গার্লস স্কুলের কারিন আশরাফ ঈন এবং ভিকারুন্নিসা নুন স্কুলের নিশাত নাবিলাহ। সেকেন্ডারি বিভাগে ৯ জন চ্যাম্পিয়ন হয়। সর্বাধিক নাম্বার পেয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় উদয়ন উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মোঃ আবু সালেহ আকিব। হায়ার সেকেন্ডারি বিভাগে চ্যাম্পিয়ন হয় ১৬ জন। এদের মধ্যে সর্বাধিক নাম্বার পেয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় ভিকারুন্নিসা নুন স্কুলের জারিন তাসনিম মম ও উদয়ন উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মনীষা রানী সাহা।

ঢাকা দক্ষিণ পর্বটি সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করতে সার্বিক সহযোগিতায় ছিল বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োমেডিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ। জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াডের জাতীয় পর্ব অনুষ্ঠিত হবে আগামী ৯ মার্চ।

About Editor

Check Also

শেরপুরে কৃতি শিক্ষার্থী এবং মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ডিপ্লোমা কৃষিবিদদের সংবর্ধনা প্রদান

শেরপুরে কৃতি শিক্ষার্থী এবং মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ডিপ্লোমা কৃষিবিদদের সংবর্ধনা দিয়েছে শেরপুর জেলা ডিপ্লোমা কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন …

2 comments

  1. প্রশ্ন কী এমসিকিউ বেইসড হবে?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *