Wednesday , April 25 2018
সর্বশেষ
Home / প্রথম পাতা / প্রাণিসম্পদ মেলার শেষদিনেও জমজমাট ছিল কেআইবি চত্বর

প্রাণিসম্পদ মেলার শেষদিনেও জমজমাট ছিল কেআইবি চত্বর

কানিজ ফাতেমা পুনমঃ “বাড়াবো প্রাণিজ আমিষ গড়বো দেশ, স্বাস্থ্য মেধা সমৃদ্ধির বাংলাদেশ” এই স্লোগানকে সামনে রেখে দেশব্যাপী আয়োজন করা হয় প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ২০১৮ । সেবা সপ্তাহ উদযাপনের অংশ হিসাবে ঢাকার ফার্মগেটে অবস্থিত কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন চত্বরে ৩ দিন ব্যাপী প্রাণিসম্পদ সম্পর্কিত প্রযুক্তি মেলার আয়োজন করা হয়েছে। সোমবার ছিল এই মেলার শেষ দিন, এদিন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন চত্বরে ছিল উপচে পড়া ভীড়, ছিল প্রচুর দর্শক সমাগম।

২য় বারের মত আয়োজিত মেলার প্রধান আকর্ষন ছিল প্রাণী ও মৎস্য সেক্টরে উদ্ভাবিত নতুন সব প্রযুক্তির উদ্ভাবন সহ পণ্য পরিচিতি। মেলা প্রাঙ্গণে সারাদিন বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখা, শীর্ষস্থানীয় এগ্রোভেট কোম্পানীর প্রযুক্তি ও প্যণ্যের সাথে পরিচিত হওয়া পাশাপাশি FAO কতৃক আয়োজিত EAT HEALTHY কর্মসূচি উপভোগ করা সবই ছিল মেলার শেষ দিনে ।

 

মেলা আয়োজনে সফল দেশের শীর্ষ কোম্পানী ACI Animal Health এর প্রোডাক্ট ম্যানেজার ডাঃ শরীয়াফত আলী খান Agriview24.com কে দেওয়া এক বিশেষ সাক্ষাতকারে জানান, অদূর ভবিষ্যতে এ ধরনের মেলা Organic Medicine এর যে বিপ্লব আমরা নিয়ে এসেছি তাকে আরো দৃঢ় করবে, সেই সাথে বাড়বে উদ্যোক্তা। মেলায় আগত দর্শনার্থী হতে ব্যাপক উৎসাহ পেয়ে খুশি বৃহৎ এ শিল্প প্রতিষ্ঠান। এতে করে Public & Private Connection (PPC) আরো উন্নতির পথে আগাবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

Growtech Animal Health এর সিনিয়র এক্সিকিউটিভ ডাঃ মোঃ তায়েবুর রহমান জানান এ মেলার মাধ্যমে বাড়ছে প্রানীসম্পদের ভূমিকা ও গুরুত্বের দিকসমূহ। একে আরো ত্বরান্বিত করতে প্রয়োজন রোড শো, শহুরে মাইকিং সহ প্রচার-প্রচারণা যা জনগনের মাঝে প্রানীসম্পদ উন্নয়নে ব্যাপক সাড়া ফেলতে পারে, এগিয়ে নিতে পারে প্রাইভেট এগ্রোভেট এর কর্মক্ষেত্র।

অভিজ্ঞ ভেটেরিনারিয়ান SMG Animal Health এর সহকারী ব্যবস্থাপক ডাঃ নিবেদিতা মল্লিক এবং Skytech Agropharma এর ডেপুটি মার্কেট ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার মো. সারোয়ার জাহান এ মেলার ভবিষ্যৎ প্রকল্প পরিকল্পনা বিষয়ক তৃনমূল পর্যায়ে খামারী সেবার কথা উল্লেখ করেন। তাদের বক্তব্যে উঠে আসে খামারি প্রশিক্ষণ সহ গ্রামীন প্রানীসম্পদ মেলার গুরুত্ব। এ ধরনের মেলা দেশের জন্য আশীর্বাদ রূপে তারা আখ্যা দেন।

Planet Pharma এর কর্মকর্তা ডা. তপু বিশ্বাস জানান, “মেলায় আমরা আমাদের প্রোডাক্ট নিয়ে এসেছি। আমরা মূলত বিভিন্ন কোম্পানী ও প্রতিষ্ঠানের সাথে কাজ করছি। ২০০৮ সাল থেকে আমাদের যাত্রা শুরু। আমাদের মূল লক্ষ্য কোয়ালিটি মেইনটেইন করা। আমাদের কোম্পানীর অগ্রযাত্রা তুলে ধরছি এই মেলার মাধ্যমে”।

পোল্ট্রি খাতে জনপ্রিয় কোম্পানি Al-Madina Pharmaceuticals Ltd. এর ডাঃ মোঃ ইলিয়াস হোসাইন এর মতে, প্রাণিসম্পদের ৯৫% অবদান আসে পোল্ট্রি খাত হতে। তাই পোল্ট্রি ব্যবস্থাকে নিরোগ রাখতে তারা নিরলস কাজ করে যাচ্ছে, রয়েছে উন্নত জাতের পোল্ট্রি ভ্যাকসিন। এছাড়াও তারা যে খামারি বান্ধব প্রশিক্ষন ও কর্মশালা বছরের বিভিন্ন সময় করেন তা এ মেলার মাধ্যমে সর্বসাধারণের কাছে পরিচিতি পাচ্ছে, সচেতন হচ্ছে মেলায় আগত দর্শক। এ ধরনের মেলাই পারে দেশের প্রানীসম্পদকে উন্নতকরণসহ রপ্তানীমুখী করে তুলতে।

উল্লেখ্য, গত ২০ জানুয়ারি প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহের উদ্বোধন করেন গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় রাষ্ট্রপতি এডভোকেট আব্দুল হামিদ। ২৩ জানুয়ারি প্রজেনি শো, ২৪ জানুয়ারি খামারী সম্মেলন এবং ২৫ জানুয়ারি সমাপনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে শেষ হবে প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহের আনুষ্ঠানিকতা।

About Editor

Check Also

পাহাড়ের কাজু বাদাম এখন জমিতে!

এগ্রিভিউ২৪ ডেস্কঃ বাংলাদেশে প্রথম কাজু বাদাম হত পাহাড়ী এলাকায়। অন্য কোথাও তেমন দেখা যেতনা। তাই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *