Monday , December 17 2018
সর্বশেষ
Home / প্রথম পাতা / আমার ক্যাম্পাস / চট্টগ্রামের পশুরহাট এবং কাজ করছে সিভাসুর ইন্টার্ন ডাক্তাররা

চট্টগ্রামের পশুরহাট এবং কাজ করছে সিভাসুর ইন্টার্ন ডাক্তাররা

সিভাসু প্রিতিনিধিঃ  আগামী দোসরা সেপ্টেম্বর উদযাপিত হতে যাচ্ছে ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় উৎসব ঈদ-উল-আযহা। মুসলিমরা বিভিন্ন ধরনের চতুষ্পদী প্রাণী (যেমনঃ গরু, ছাগল, মহিষ, উট) আল্লাহর নামে উৎসর্গের মাধ্যমে দিনটিকে উদযাপন করবেন।

ঈদকে ঘিরেই চট্টগ্রাম বিভাগের বিভিন্ন জায়গায় বসেছে পশুর বাজার। এসব বাজারে গ্রাম এবং চরাঞ্চল থেকে খামারীরা বিক্রীর উদ্দেশ্যে নিয়ে আসছে তাদের পালিত পশুদের।

ক্রেতাদের নীরোগ পশুনির্বাচনে সহায়তা, পশুর জরুরী চিকিৎসা ও লক্ষণ দেখে পশুর রোগ নির্ণয় করা সহ বিভিন্ন সেবা প্রদান করার উদ্দেশ্যে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের উদ্দ্যোগে নিয়োগ করা হয়েছে ৬৭ টি ভেটেরিনারি দল। যারা সুষমভাবে কাজ করছে বিভাগের ১৯৬টি পশুবাজারে যার মধ্যে ৪০টি পশুবাজার স্থায়ী। গত শনিবার চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের এক ব্রিফিংয়ে এই বিষয় সুনিশ্চিত করেন, জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ মোহাম্মদ রেয়াজুল হক।

মুঠোফোনে তার সঙ্গে সরাসরি আলাপচারিতায়, তিনি জানান, “৩ থেকে ৭জন সদস্য নিয়ে প্রতিটি ভেটেরিনারি দল গঠন করা হয়েছে। চট্টগ্রাম বিভাগের স্থায়ী পশুর হাটগুলোতে সার্বক্ষণিক সেবা প্রদান সুনিশ্চিত করা হচ্ছে। সাগরীকা চট্টগ্রামের সর্ববৃহৎ পশু হাট যেখানে নিয়োজিত রয়েছে চারটি ভেটেরিনারি টিম, সকালে ২টি এবং বিকালে ২টি। বিবিরহাট আরো একটি পশুর বাজার যেখানে কাজ করছে সকাল-বিকাল দুটি ভেটেরিনারি টিম।

ভেটেরিনারি টিমগুলো কিভাবে কাজ করছে, এই প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “কোন কোন অসুখের জন্যে কি কি চিকিৎসা দেয়া হবে তা আগেই ভেটেরিনারি টিমগুলোকে অব্যাহত করা হয়েছে। মূলত দুরবর্তী জায়গাগুলো থেকে যে সমস্ত পশুগুলোকে আনা হয়েছে, তারা স্ট্রেস, ডিহাইড্রেশান(পানিশূণ্যতা) এবং আঘাতজনিত রোগে ভোগে, সে সকল পশুদের ফ্লুইড ট্রীটমেন্ট দেয়া এবং নানা ধরনের চিকিৎসা যেগুলো মানুষের স্বাস্থ্যের জন্যে সাংঘর্ষিক নয়, সে সকল চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।”

উল্লেখ্য, এই ভেটেরিনারি টিমগুলো গঠিত হয়েছে চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি এন্ড অ্যানিমেল সাইন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিভাসু) ভেটেরিনারি মেডিসিন অনুষদের বর্তমান ইন্টার্নরত ডাক্তাররা। সর্বমোট ৪৮জন ডাক্তার জেলা প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের কর্মকর্তার অধীনে তাদের দায়ীত্ব পালন করছেন। মানুষের সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করার লক্ষ্যে এবং ক্রেতারা যেনো তাদের পছন্দের সুস্থ পশুটিকে কিনতে পারে সেজন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছে।

সাগরীকা পশুহাটে কর্মরত আছেন ইন্টার্ন ডাক্তার জয়া চৌধুরী, বিথী সরকার, প্রজ্ঞায়ন চাকমা, প্রণেশ দত্ত এবং আরো অনেকে
রাঙ্গুনিয়া পশুরহাটে কর্মরত আছেন ইন্টার্ন ডাক্তার মোঃ ইউসুফ মুন্না
পাঁচলাইশ পশুরহাটে কর্মরত আছেন ইন্টার্ন ডাক্তার সাজ্জাদ হোসেইন, বশির আহাম্মেদ

About Meherjan Islam

Check Also

সরিষা ক্ষেতে কৃত্রিম পদ্ধতিতে মধু চাষ করছেন নওগাঁর শিক্ষিত যুবকরা

দিগন্ত জুড়ে ফসলের মাঠ। যতদুর চোখ যায় শুধু হলুদ আর হলুদ রঙে মাখামাখি। এ যেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *